আগমনী : এপিজে বাংলা সাহিত্য উৎসব ২০১৭।

বাঙালীর সাহিত্যপ্রেমের বরাবরই কোনো তুলনা হয় না। সুখে দুঃখে, হাসি কান্নায় কবিতা-গানের অভাব রবীন্দ্রনাথ কোনোদিন হতে দেননি। জীবনে একবারও কবিতা লিখতে চেষ্টা করেনি এমন বাঙালী আতশ কাচের তলাতেও খুঁজে পাওয়া যাবেনা। জীবনানন্দের বনলতা সেন থেকে সুনীলের নীরা- কবিতাই চিরকাল বাঙালীর প্রেমিকা যোগানের ব্যবস্থা করে এসেছে।

সাহিত্যপ্রেমী বাঙালীর এই বাংলাতেই সাল ২০১৫, অক্টোবর মাসের এক শনিবার সকালে এপিজে বাংলা সাহিত্য উৎসব (ABSU) তার পথ চলা শুরু করে। মহালয়ার তিনদিন আগে দুই বাংলার মাঝের কাঁটাতারকে উপেক্ষা করেই অক্সফোর্ড বুক স্টোরে শুরু হল বাংলা সাহিত্য ও সংস্কৃতির এক নতুন উদযাপন, শুরু হল নবীন প্রজন্মের কাছে বাংলা সাহিত্যকে পৌঁছে দেওয়ার এক নতুন প্রচেষ্টা, পাশে ছিল পত্রভারতী প্রকাশনী। এই অনুষ্ঠানে মোট সাতটি আলোচনাসভার আয়োজন করা হয়- “পাঠকের জন্য লিখি, না মনের তাগিদে লিখি”, “বিতর্ক না হলে সাহিত্য জনপ্রিয় হয়না”, “সিনেমার সাহিত্য, নাকি সাহিত্যের সিনেমা” এরকম কয়েকটি বিতর্কমূলক ও যুগোপযোগী বিষয় নিয়ে। আলোচনায় ছিলেন শঙ্খ ঘোষ, সমরেশ মজুমদার, শ্রীজাত, নবনীতা দেবসেন, ইমদাদুল হক মিলন, শীর্ষেন্দু মুখোপাধ্যায়, তিলোত্তমা মজুমদার ও আরও অনেক বিশিষ্ট ব্যক্তিত্ব। দিনের শেষ অধিবেশনে বরুণ চন্দের পরিচালনায় নচিকেতা, সুরজিৎ ও কালিকাপ্রসাদের “সার্থক আধুনিক গান, সার্থক কবিতা”-র আলোচনা দিয়ে শেষ হল একদিনের এই সাহিত্যানুষ্ঠান।

২০১৬, ২১শে অক্টোবর আবার ফিরে এল ABSU। স্থান আবারো সেই অক্সফোর্ড বুক স্টোর, সহ নিবেদক পত্রভারতী প্রকাশনী। এবারে এই উৎসবের আয়ুষ্কাল বেড়ে হল দু’দিন। উৎসবের উদ্বোধক কবি শঙ্খ ঘোষ। এবারে দু’দিনে মোট আটটি অধিবেশন- “অণু-পরমাণু গল্প-কবিতা হুজুগ, না সাহিত্য?”, “মুখের ভাষা কি সাহিত্যের ভাষা হওয়া উচিৎ?”, “সোশ্যাল মিডিয়া কি সাহিত্যের ক্ষতি করছে?” ইত্যাদি কিছু প্রাসঙ্গিক বিষয় নিয়ে। এই আলোচনাসভাগুলি ঋদ্ধ করেছেন নচিকেতা, নবনীতা দেবসেন, সঞ্জীব চট্টোপাধ্যায়, শীর্ষেন্দু মুখোপাধ্যায়, শ্রীজাত, সমরেশ মজুমদার ও আরও অনেক বিজ্ঞজন। উৎসবের শেষ অধিবেশন ছিল “সিনেমাতে সাহিত্যের গোয়েন্দা”, আলোচনায় ছিলেন অরিন্দম শীল, সব্যসাচী চক্রবর্তী। আলোচনা সভা ছাড়াও ছিল অণু-পরমাণু গল্প প্রতিযোগিতা, শব্দবাজি, বাংলা সাহিত্য ক্যুইজ এবং আরও বিভিন্ন আকর্ষণ। শরদিন্দু’র ব্যোমকেশ, শরৎচন্দ্রের দেবদাস ও আরও অনেক বিখ্যাত চরিত্রকে দেখা গেল আয়োজিত “বহুরূপী” প্রতিযোগিতায়।

15016288_1876817215870635_3406654696120464817_o

 

 

২০১৭-তেও কোনো ব্যতিক্রম ছাড়াই বাংলার মানুষকে নিজের শেকড়ের টানে বাঁধতে আবার আসতে চলেছে ABSU এই নভেম্বর মাসে বই পাগলদের পাগলামিতে ধোঁয়া দিতে।
1220x740

Advertisements

One thought on “আগমনী : এপিজে বাংলা সাহিত্য উৎসব ২০১৭।”

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out /  Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out /  Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out /  Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out /  Change )

Connecting to %s